নিজের অভিজ্ঞতা থেকে লিখেছেন, মোহাম্মাদ শাহাদত হোসাইন সিদ্দিকী, সিনিয়র অ্যাসিসটেন্স ডিরেক্টর ন্যাশনাল এগ্রিকালচার ট্রেনিং একাডেমি, (নাটা) গাজীপুর।

লাউ গাছের চারা পানির প্রতি খুবই সংবেদনশীল। বেশী পানি পেলে চারার গোড়া পচে যায়। এজন্য গাছের গোড়ায় যেন পানি জমে না থাকে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।

আমি কয়েকটি লাউয়ের বীজ বপন করেছিলাম। ৩-৪ টি চারা গজালেও একটি চারার স্বাস্থ্য বেল ভালো ছিলো। একটি লাউয়ের চারা ধীরে ধীরে বড় হচ্ছিল।

অসময়ে বৃষ্টি তাতে বাঁধ সাধলো। একটানা সপ্তাহখানেক বৃষ্টিতে গাছের গোড়ায় পচন ধরলো।

বড়টি বাদে ছোট চারাগুলো মারা গেলো। বিষয়টি দেখে আমার খুব মায়া হলো।

একটি ধারালো চাকু দিয়ে গোড়ার পচা অংশ চেছে ফেলে দিলাম। এরপর এমিস্টার টপ ও ফলিকুর নামক ছত্রাকনাশক প্রতি ১ লিটার পানিতে ০৫ ফোঁটা হারে স্প্রে করলাম।

তিন দিন পর পর তিনবার স্প্রে করার পর রোগ ভালো হয়ে গেলো। এরপর চারাটিতে উঠিয়ে অন্যত্র রোপণ করলাম। গাছে যখন ফুল ধরা শুরু হলো তখন ভালো করে মাচা দিলাম। এখন সুন্দর লাউ হয়েছে।

লাউ গাছের গল্প এখানেই শেষ। আমার গল্প বলার উদ্দেশ্য হলো উপযুক্ত যত্ন করতে পারলে নিজে নিজে নিরাপদ সবজি উৎপাদন করা সম্ভব।

 

বাংলাদেশ সময়: ঘণ্টা, ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮