নিজস্ব প্রতিবেদক, এগ্রিকেয়ার২৪.কম: গতকাল বৃহস্পতিবার (১১ জুন) থেকে সাগরে লঘুচাপ এবং মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে সারা দেশে ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছিল আবহাওয়া অধিদফতর।আজ শুক্রবার ১২ জুন সাগরে আরোও ঘনীভূত হতে পারে নিন্মচাপ, যেসব অঞ্চলে ভারী বৃষ্টি হতে পারে সেসব অঞ্চলের বিষয়ে জানিয়েছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আজ শুক্রবারও ১২ জুন ২০২০ সকাল ৯ টা থেকে ২৪ ঘন্টার পূর্বাভাসে এসব তথ্য জানিয়েছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আজ (১২ জুন) সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত দেশের অভ্যন্তরীণ নদীবন্দর গুলোর জন্য আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়, ফরিদপুর, মাদারীপুর, খুলনা, বরিশাল, পটুয়াখালী, নোয়াখালী, কুমিল্লা, চট্রগ্রাম এবং কক্সবাজার অঞ্চলগুলোর উপর দিয়ে দক্ষিণ বা দক্ষিণ-পূর্ব দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫-৬০ কিলোমিটার বেগে বৃষ্টি অথবা বজ্রবৃষ্টিসহ অস্থায়ীভাবে দমকা বা ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। এসব এলাকার নদী বন্দরগুলোকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

আবহাওয়া অফিস জানায়, পূর্ব মধ্য বঙ্গোপসাগর ও পশ্চিম মধ্য বঙ্গোপসাগর এলাকায় সুস্পষ্ট লঘুচাপ হিসেবে অবস্থান করছে। এটি আরও ঘনীভূত হতে পারে। এদিকে দক্ষিণ পশ্চিম মৌসুমি বায়ু চট্টগ্রাম, বরিশাল, সিলেট ও ঢাকা  বিভাগের পূর্বাংশ পর্যন্ত অগ্রসর হয়েছে। এটি আরও অগ্রসর হয়ে সারা দেশে বিস্তার লাভ করবে।

সেই পূর্বাভাস বজায় থাকবে। একইসঙ্গে দমকা হাওয়াসহ কোথাও ভারী থেকে মাঝারি বৃষ্টি হতে পারে।তবে কোন ধরণের সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়নি।।

পূর্বাভাসে বলা হয়, চট্টগ্রাম,  বরিশাল ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায়, ঢাকা, খুলনা, ময়মনসিংহ, রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের অনেক জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে ভারী বৃষ্টি হতে পারে।

সাগরে আরোও ঘনীভূত হতে পারে লঘুচাপ, যেসব অঞ্চলে ভারী বৃষ্টি শিরোনামে সংবাদের তথ্য নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর।