পুষ্টি ও স্বাস্থ্য বার্তা ডেস্ক, এগ্রিকেয়ার২৪.কম: কোনও সবজির এক কেজির দাম এক হাজার টাকা শুনে অবিশ্বাস্যও লাগতে পারে। কিন্তু এরচেয়েও দামী সবজি রয়েছে। আপাতত হাজার টাকা কেজির সবজিটির নাম কাটরুয়া। এটিকে নিরামিষভোজীদের আমিষ খাবারও বলা হয়।

ভারতের উত্তরপ্রদেশের পীলভীত এবং লখিমপুরের জঙ্গলে মহামূল্যবান এই সবজি পাওয়া যায়। কেন এত দাম? জানা গিয়েছে, এই সবজিতে প্রোটিনের মাত্রা এত বেশি যে, দাম যতই চড়া হোক না কেন, কাটরুয়ার চাহিদা কোনও সময়েই কমে না।

মূলত বর্ষাকালেই এই সবজি পাওয়া যায়। পীলভীত এবং লখিমপুরে পীলভীত টাইগার রিজার্ভ এলাকাতেই এই সবজির দেখা মেলে। শাল এবং সেগুন গাছের গোড়ায় মাটির নীচে এই সবজি হয়।

পড়তে পারেন: ভাদ্র মাসে লাউ শিমের ‍বিশেষ যত্ন, আগাম শীতকালীন সবজির প্রস্ততি

প্রতি বছর এই সবজির দাম আগের বছরের তুলনায় বাড়ে। কিন্তু তাতেও চাহিদা কমে না। দূরদূরান্ত থেকে লোক এসে পীলভীত এবং লখিমপুরের সব্জি মণ্ডি থেকে কাটরুয়া কিনে নিয়ে যান। ভরপুর প্রোটিন এবং স্বাদের জন্য এই সবজির চাহিদা হলেও, কাটরুয়া সংগ্রহে নিষেধাজ্ঞাও জারি করা হয়েছে।

টাইগার রিজার্ভের মধ্যে এই সবজি পাওয়া যায় বলে, বন্য পরিবেশ ক্ষতি হতে পারে, এই আশঙ্কায় কাটরুয়া সংগ্রহে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। কিন্তু তার পরেও স্থানীয় লোক ঝুঁকি নিয়ে জঙ্গলে ঢুকে এই সবজি সংগ্রহ করে আনেন। এই সবজির চাহিদা যেমন মানুষের মধ্যে রয়েছে, তেমন হরিণেরও প্রিয় খাদ্য এই কাটরুয়া।

পড়তে পারেন: বর্ষায় ছাদে সবজি বাগান, জানুন কৌশল

১৯৯১ সালে পীলভীতের জঙ্গলে বেশ কিছু লোক লুকিয়ে এই সবজি সংগ্রহ করছিলেন। সেই সময় অজ্ঞাতপরিচয় দুষ্কৃতীদের হাতে খুন হন ২৯ জন। তাদের দেহ ওই জঙ্গলেই পুঁতে দেওয়া হয়।

পরে জানা গিয়েছিল, জঙ্গিরা ওই জঙ্গলে নিজেদের ডেরা বানিয়েছিল। কাটরুয়া সংগ্রহ করতে আসা লোকেদের চোখে পড়ে যাওয়ায় সেই খবর যাতে বাইরে চাউর না হতে পারে, তার জন্য গুলি এবং শ্বসারুদ্ধ করে খুন করা হয়।

এগ্রিকেয়ার/এমএইচ