বৃহস্পতিবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৯, ১:৫৭
Home > পুষ্টি ও স্বাস্থ্য বার্তা > ভেজালমুক্ত খাদ্য নিশ্চিতে সরকার, নাগরিক সমাজ ও সর্বসাধারণের সচেতনতা জরুরি
2097_ACS_1627_19-Poultry_Dairy-Ad
ভেজালমুক্ত খাদ্য নিশ্চিতে সরকার

ভেজালমুক্ত খাদ্য নিশ্চিতে সরকার, নাগরিক সমাজ ও সর্বসাধারণের সচেতনতা জরুরি

ডেস্ক প্রতিবেদন, এগ্রিকেয়ার২৪.কম: ভেজালমুক্ত খাদ্য নিশ্চিতে সরকার, নাগরিক সমাজ ও সর্বসাধারণের সচেতনতা জরুরি বলে মন্তব্য করেছেন বক্তারা।

মঙ্গলবার (১৫ অক্টোবর, ২০১৯) বিশ্ব খাদ্য দিবস উপলক্ষ্যে পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা) ও বারসিক কর্তৃক আয়োজিত বিষ ও ভেজালমুক্ত খাদ্য : বর্তমান অবস্থা ও করণীয় শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনা সভায় বক্তারা এ মন্তব্য করেন।



বক্তারা বলেন, বিষ ও ভেজালমুক্ত খাদ্য নিশ্চিত করতে না পারলে দেশ ভয়াবহ পরিস্থিতির মধ্যে পড়বে। বাংলাদেশের সর্বত্রই ছড়িয়ে পড়েছে ভেজাল ও বিষযুক্ত খাদ্য। এটি দেশকে ও মানুষকে চরম বিপর্যয়ের মধ্যে ফেলে দিবে। খাদ্য দূষণকারীদের দূর্নীতিবাজ হিসাবে চিহ্নিত করে কঠোর আইনের আওতায় আনার দাবি জানান তারা।

পবার চেয়ারম্যান আবু নাসের খানে সভাপতিত্বে গোলটেবিলে আলোচনা করেন পবার সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী আব্দুস সোবহান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডা: লেলিন চৌধুরী, গবেষক ও লেখক পাভেল পার্থ, ৭১ ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ডা: খালেদ শওকত আলী, অ্যাড মাহবুবুল আলম তাহিন, বারসিকের সমন্বয়ক মো: জাহাঙ্গীর আলম, পবার সম্পাদক ফেরদৌস আহমেদ উজ্জ্বল, কবি কামরুজ্জামান ভূইয়া, যুব ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান মো: শহীদুল্লাহ, শাকিল ওসমান, প্রাকৃতিক কৃষির দেলোয়ার জাহান,  বস্তিবাসী নেত্রী ঝুমুর বেগম আলম প্রমূখ।

গোলটেবিলে বক্তারা বলেন, মানুষসহ সকল প্রাণসত্তার জন্য নিরাপদ খাদ্যের জোগানের ভেতর দিয়ে ভবিষ্যতের নির্মল পরিবেশ ও জনস্বাস্থ্যের সুরক্ষায় চাই সকল স্তরের এক সমন্বিত জাগরণ।

খাবার নিরাপদ কী না এ নিয়ে নিয়মিত খাদ্য পরীক্ষাটাও জরুরি। আমরা যেমন খাবারে কোনো ভেজাল চাই না, আবার ফরমালিন-কার্বাইড বা ক্ষতিকর কোনো উপাদান খাবারে মিশে থাকুক তাও চাইনা।

অতি মুনাফালোভী কৃষক, উৎপাদনকারী, মজুতকারী, পাইকারী ও খুচরা বিক্রেতা খাদ্যে রাসায়নিক দ্রব্যাদি, ডিডিটি, কীটনাশক, কাপড়ের রং, রেল ইঞ্জিন, বৈদ্যুতিক ট্রান্সফরমার, মোটর যান, নৌ যান ও কলকারখানার পোড়া তেল ও মবিল মিশ্রিত তেল, ফরমালিন, ক্যালসিয়াম কার্বাইড, ইথেফেন, কৃত্রিম হরেমান ব্যবহার করছে।

কৃষিজাত পণ্যে বিভিন্ন রাসায়নিক পদার্থ ও কীটনাশক ব্যবহার করা হচ্ছে। মিষ্টিতে কাপড়ের রং প্রয়োগ করা হয়। শুটকি মাছ সংরক্ষণে ডিডিটি ও হেপ্টাক্লোর ব্যবহার করা হয়।

এইসব রাসায়নিক মানবদেহের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর। কৃষিতে কীটনাশকের ব্যাপক অপপ্রয়োগ এবং মাত্রাতিরিক্ত সার ব্যবহার দেশের জনস্বাস্থ্যকে বিশাল ঝুঁকির মুখে ঠেলে দিয়েছে। কৃষিপণ্যকে কীটনাশক থেকে রক্ষা করা গেলে মানুষ অনেকটা স্বাস্থ্য ঝুঁকিমুক্ত হতে পারে।

জাতীয় খাদ্য নিরাপত্তা গবেষণাগারে ৮২টি খাদ্যপণ্য পরীক্ষা করা হয়। এতে গড়ে ৪০ শতাংশ খাদ্যেই মানবদেহের জন্য ইউরোপীয় ইউনিয়নের নির্ধারিত সহনীয় মাত্রার চেয়ে ৩ থেকে ২০ গুণ বেশি নিষিদ্ধ ডিডিটি, এলড্রিন, ক্লোরডেন, হেপ্টাক্লোর এবং অন্যান্য বিষাক্ত উপাদান পাওয়া যায়।

এসব রাসায়নিক বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কর্তৃক অত্যন্ত বিপজ্জনক হিসাবে শ্রেণীবদ্ধ করা হয়েছে। ৩৫ শতাংশ ফল ও ৫০ শতাংশ শাকসবজির নমুনাতেই বিষাক্ত বিভিন্ন কীটনাশকের উপস্থিতি রয়েছে।

চালের ১৩টি নমুনায় মিলেছে মাত্রাতিরিক্ত বিষক্রিয়া সম্পন্ন আর্সেনিক, পাঁচটি নমুনায় পাওয়া গেছে ক্রোমিয়াম। হলুদের গুঁড়ার ৩০টি নমুনায় ছিল সীসা ও অন্যান্য ধাতু।

লবণেও সহনীয় মাত্রার চেয়ে ২০-৫০ গুণ বেশি সীসা পাওয়া গেছে। মুরগির মাংস ও মাছে পাওয়া গেছে মানুষের শরীরের জন্য ক্ষতিকর এন্টিবায়োটিকের অস্তিত্ব। হলুদ ও লবণে সীসাসহ আরো কিছু ধাতব উপাদান প্রয়োগের মাধ্যমে এগুলো চকচকে ও ভারী করা হয়।

সভায় একাধিক দাবি তুলে ধলা হয়। এগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো খাদ্যে রাসায়নিক দ্রব্যাদি মিশানোর সাথে জড়িত এবং রাসায়নিক দ্রব্যাদিযুক্ত ও ভেজাল খাদ্য বিক্রয়কারীদের মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে দন্ড প্রদান অব্যাহত রাখা। ভেজালমুক্ত খাদ্য নিশ্চিতে সরকার, নাগরিক সমাজ ও সর্বসাধারণের সচেতনতা জরুরি এ মন্তব্যের সাথে বক্তারা সবাই একমত পোষণ করেন।

আরও পড়ুন: টেকসই কৃষির লক্ষ্য পূরণে মেধাবী ও তরুণদের এগিয়ে আসার আহ্বান কৃষিমন্ত্রীর

About এগ্রিকেয়ার২৪.কম

Check Also

প্রাণিজ আমিষ গ্রহণের পরিমান

প্রাণিজ আমিষ গ্রহণের পরিমান বৃদ্ধিতে আমরাও হতে পারি অধিক মেধাসম্পন্ন

পোল্ট্রি ডেস্ক, এগ্রিকেয়ার২৪.কম: প্রাণিজ আমিষ গ্রহণের পরিমান বৃদ্ধিতে আমরাও হতে পারি অধিক মেধাসম্পন্ন বলে উল্লেখ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

স্বত্ব © এগ্রিকেয়ার টোয়েন্টিফোর.কম (২০১৭-২০১৯)
সম্পাদক: কৃষিবিদ মো. হামিদুর রহমান। নির্বাহী সম্পাদক: মো. আবু খালিদ।
যোগাযোগ: ২৩/৬ আইওনিক প্রাইম, রোড ২, বনানী, ঢাকা ১২১৩।
Email: agricarenews@gmail.com, Mobile Number: 01831438457, 01717622842